You are here
Home > জাতীয় > মেয়ের বাবা হওয়ার আনন্দে মন্ত্রিসভায় মিষ্টিমুখ করালেন রেলমন্ত্রী

মেয়ের বাবা হওয়ার আনন্দে মন্ত্রিসভায় মিষ্টিমুখ করালেন রেলমন্ত্রী

মেয়ের বাবা হলেন রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক

মেয়ের বাবা হওয়ার আনন্দে আজ সোমবার মন্ত্রিসভার সদস্যদের মিষ্টিমুখ করালেন রেলপথমন্ত্রী মুজিবুল হক।

আজ সোমবার সচিবালয়ে মন্ত্রিসভার বৈঠকে রেলমন্ত্রী সবাইকে মিষ্টিমুখ করান। মন্ত্রিসভার সদস্যরা সবাই তাঁকে অভিনন্দন জানান।

এ সময় বৈঠকের সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রেলমন্ত্রীর কাছে জানতে চান, নবজাতকের নাম রাখা হয়েছে কি না। জবাবে রেলমন্ত্রী বলেন, ‘এটা আপনার জন্য রেখে দিয়েছি।’ প্রধানমন্ত্রী তখন বলেন, নাম রাখার দায়িত্বটা মা–বাবার।

২৮ মে বেলা পৌনে তিনটার দিকে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে রেলমন্ত্রীর স্ত্রী হনুফা আক্তার রিক্তা কন্যাসন্তানের জন্ম দেন। জানতে চাইলে রেলমন্ত্রী তখন প্রথম আলোকে বলেন, ‘আল্লাহর রহমতে মেয়েসন্তানের বাবা হয়েছি, সবার দোয়া চাই। ধর্মীয় রীতি অনুযায়ী মিলাদ দিয়ে মেয়ের নাম রাখব।’

২০১৪ সালের ৩১ অক্টোবর রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক ৬৭ বছর বয়সে কুমিল্লার চান্দিনা উপজেলার গল্লাই ইউনিয়নের মীরাখলা গ্রামের ৩২ বছর বয়সী হনুফা আক্তারের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন। ৬৭ বছরে চিরকুমার থেকে মুজিবুল হকের বিয়ের বিষয়টি ওই সময় বেশ আলোচিত ছিল। আর গতকাল যখন তিনি কন্যাসন্তানের বাবা হলেন, তখন তাঁর বয়স প্রায় ৬৯ বছর।

১৯৯৬, ২০০৮ ও ২০১৪ সালে মুজিবুল হক চৌদ্দগ্রাম থেকে সাংসদ নির্বাচিত হন। ২০১২ সালের ১৩ সেপ্টেম্বর থেকে তিনি রেলপথমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করছেন। মন্ত্রীর স্ত্রী হামদর্দ ল্যাবরেটরিজ (ওয়াকফ) বাংলাদেশ লিমিটেডের আইন উপদেষ্টা হিসেবে কর্মরত আছেন।

Top