You are here
Home > আন্তর্জাতিক > লক্ষ জনতার সামনে শপথ নিলেন মমতা

লক্ষ জনতার সামনে শপথ নিলেন মমতা

লক্ষ জনতার সামনে শপথ নিলেন মমতা

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শুক্রবার দ্বিতীয়বারের জন্য শপথ নিলেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এই প্রথম প্রকাশ্য রেড রোডে লাখো জনতার উপস্থিতিতে শপথ নিলেন তিনি।

শুক্রবার দুপুর পৌনে ১টার দিকে চিরাচরিত প্রথা ভেঙে রাজভবনের ঘেরাটোপ পেরিয়ে ইন্দিরা গান্ধী সরণীর (রেড রোড) মুক্তমঞ্চে শপথবাক্য পাঠ করেন মমতা।

পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল কেশরি নাথ ত্রিপাঠি শপথবাক্য পাঠ করান।

এদিন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়সহ মোট ৪২ জন মন্ত্রী শপথ গ্রহণ করেন, যার মধ্যে পূর্ণ মন্ত্রী  হিসেবে শপথ নেন ২৯ জন এবং স্বাধীন দায়িত্বপ্রাপ্ত ও প্রতিমন্ত্রী হিসেবে শপথ নেন ১২ জন।

মমতার এবারের মন্ত্রিসভায় সাতজন মুসলিম, একজন খ্রিষ্টান ও চারজন আধিবাসী প্রতিনিধি জায়গা পেয়েছেন। মমতাকে নিয়ে মন্ত্রিসভায় তিনজন নারী রয়েছেন।

মন্ত্রিসভায় নতুন মুখ ১৭ জন। গতবারের মন্ত্রিসভার নয়জন সদস্যকে এবার বাদ দেওয়া হয়েছে।

মমতা ছাড়াও শপথ নিয়েছেন গায়ক ইন্দ্রনীল সেন, ক্রিকেটার লক্ষ্মীরতন শুক্লা, সিদ্দিকুল্লা চৌধুরী, অমিত মিত্র, জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক, গিয়াসুদ্দিন মোল্লা, গোলাম রব্বানী, রেজ্জাক মোল্লা, পার্থ চট্টোপাধ্যায়, সুব্রত মুখোপাধ্যায়, শুভেন্দু অধিকারী, ব্রাত্য বসু, রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়, পূর্নেন্দু বসু, গৌতম দেব, মন্টুরাম পাখিরা, ফিরহাদ হাকিম, সাধন পান্ডে, জাভেদ খান, শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়, শশী পাঁজা, জেমস কুজুর, বিনয়কৃষ্ণ বর্মণ প্রমুখ।

মমতার শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ভারতের কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি, দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী তথা আম-আদমি পার্টির সুপ্রিমো অরবিন্দ কেজরিওয়াল, উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী অখিলেশ সিংহ যাদব, বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতিশ কুমার, আরজেডি সভাপতি লালু প্রসাদ যাদব, কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী তথা গায়ক বাবুল সুপ্রিয়, জম্মু-কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী ফারুক আবদুল্লাহ।

এ ছাড়া উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূত তথা বাংলাদেশের শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু, ভুটানের প্রধানমন্ত্রী শেরিং তোবাগেসহ অনেকে। ছিলেন ভারতীয় ক্রিকেটের প্রাক্তন অধিনায়ক সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়, অভিনেত্রী ঋতুপর্ণা সেনগুপ্তসহ বিশিষ্টজন।

মমতার এই ঐতিহাসিক শপথ অনুষ্ঠানে রাজ্যের কোনো বিরোধী দল উপস্থিত ছিল না।

নির্বাচন-পরবর্তী সহিংসতার অভিযোগে বামফ্রন্ট, কংগ্রেস শপথ অনুষ্ঠান বয়কট করে। বিজেপির কেন্দ্রীয় সরকারের মন্ত্রীরা এলেও রাজ্য বিজেপি নেতারা অনুষ্ঠান বয়কট করেছেন। তাঁরা এদিন রাজ্যজুড়ে সহিংসতার প্রতিবাদে আন্দোলন শুরু করেছেন।

শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠান শেষে মুখ্যমন্ত্রী মমতা ও মন্ত্রিসভার সদস্যরা রাজ্য সরকারের দপ্তর নবান্নে যান। সেখানে মুখ্যমন্ত্রীকে কলকাতা পুলিশের পক্ষ থেকে গার্ড অব অনার দেওয়া হয়।

পশ্চিমবঙ্গের বিধানসভা নির্বাচনে বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলোকে হোয়াইটওয়াশ করে দিয়ে রাজ্যের ২৯৪টি আসনের মধ্যে মমতার তৃণমূল কংগ্রেস একাই ২১১টি আসন পেয়ে ক্ষমতায় আসীন হলো এদিনের শপথ গ্রহণের মাধ্যমে।

Top