You are here
Home > প্রযুক্তি > আপওয়ার্কের চার্জ বাড়ানোর সিদ্ধান্তে হতাশ ফ্রিল্যান্সাররা

আপওয়ার্কের চার্জ বাড়ানোর সিদ্ধান্তে হতাশ ফ্রিল্যান্সাররা

আপওয়ার্কের চার্জ বাড়ানোর সিদ্ধান্তে হতাশ ফ্রিল্যান্সাররা

আউটসোর্সিং মার্কেটপ্লেস আপওয়ার্ক কাজের ধরনভেদে ফ্রিল্যান্সারদের কাজের চার্জ বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে। বুধবার এক ইমেইলের মাধ্যমে ফ্রিল্যান্সারদেরকে বিষয়টি অবহিত করে আপওয়ার্ক কর্তৃপক্ষ।

তারা বলেছে, আসছে জুন মাস থেকেই এই মার্কেটপ্লেসে কাজ করা ফ্রিল্যান্সারদের জন্য নতুন এই নিয়ম কার্যকর হবে।

চার্জের নতুন নিয়ম অনুযায়ী, যেসব ফ্রিল্যান্সাররা ৫০০ ডলার পর্যন্ত কাজ করবেন তাদের ক্ষেত্রে ২০ শতাংশ, ৫০০-১০ হাজার ডলার পর্যন্ত ১০ শতাংশ এবং ১০ হাজার ডলারের উপরে ৫ শতাংশ হারে চার্জ কর্তন করা হবে। এর আগে এই চার্জ সবপর্যায়ে ১০ শতাংশ হারে ছিল।

নতুন চার্জের বিষয়ে হতাশা প্রকাশ করে আপওয়ার্কের একজন ফ্রিল্যান্সার তামিম বলেন, নতুন এই চার্জের ফলে আমরা অনেক ক্ষতিগ্রস্থ হবো। আমরা বেশীর ভাগ ফ্রিল্যান্সাররা এই মার্কেটপ্লেসে ছোট-খাট কাজই বেশী করি। আমাদের লক্ষ্যই থাকে কম মূল্যের বেশী প্রজেক্টে কাজ করার। এতে আমাদের কাঙ্খিত অর্থনৈতিক লক্ষ্যে পৌঁছানো সহজ হয়। কিন্তু আপওয়ার্কের এই সিদ্ধান্তের ফলে এখন এই মার্কটেপ্লেসে আমাদের জন্য কাজ করা কষ্টসাধ্য হবে।

আপওয়ার্কের এমন সিদ্ধান্তের প্রতিক্রিয়ায় সিনিয়র ফ্রিল্যান্সার ও আপওয়ার্ক বাংলাদেশের প্রথম ক্যান্ট্রি ম্যানেজার রুপম রাজ্জাক বলেন, আপওয়ার্কের এমন সিদ্ধান্তে নি:সন্দেহে এই মার্কেটপ্লেসে ফ্রিল্যান্সাররা আগ্রহ হারাবে। কারন বাংলাদেশে অল্প টাকায় কাজ করার লোকের সংখ্যা বেশী। সেক্ষেত্রে আপওয়ার্কের স্তরভেদে চার্জের এমন বিন্যাসের ফলে সবচেয়ে বেশী ক্ষতিগ্রস্থ হবে ফ্রিল্যান্সারদের নবীন এবং মধ্যম সারির বৃহৎ একটি অংশ।

এদিকে এ বিষয়টি নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ক্ষুদ্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করতে দেখা গেছে অনেক ফ্রিল্যান্সারকে।

Top