You are here
Home > অবাক-বিস্ময় > মন্দিরের দান বাক্সে ৯২ লক্ষ টাকার হিরের নেকলেস!

মন্দিরের দান বাক্সে ৯২ লক্ষ টাকার হিরের নেকলেস!

মন্দিরের দান বাক্সে ৯২ লক্ষ টাকার হিরের নেকলেস

কথায় বলে না ‘উপরওয়ালা যব দেতা হ্যায়, ছপ্পড় ফারকে দেতা হ্যায়’। কিন্তু তা বলে এতটা ছপ্পড় ফারকে! দান বাক্সে আস্ত দুটো হিরের নেকলেস! এমনটাও সম্ভব!

নাসিকের সাই বাবার মন্দিরের কর্মীরা দান বাক্স থেকে শুধু টাকা পয়সাই নয়, সোনা, রুপো, এমনকি দামী দামী পাথরও পেয়ে থাকেন। এটা তাঁদের কাছে নিতান্তই সাধারণ একটা ঘটনা। কয়েক কুঁচি হিরে পেলেও আশ্চর্য হন না। কিন্তু এবার দান বাক্স থেকে যা পেলেন তাতে তাঁদেরও চক্ষু চড়কগাছ। দান বাক্সে জমা পড়েছে দু-দুটো আস্ত হিরের নেকলেস। আর তার দাম শুনে তাঁদেরও চোখ কপালে উঠে যাওয়ার জোগাড়। নেকলেস দুটির দাম ৯২ লক্ষ টাকা!

সত্যিই এটা অবিশ্বাস্য। সাই বাবার মন্দিরের ইতিহাসে দান করা এটাই সবথেকে দামী কোনও বস্তু। এর আগে এত দামী কোনও বস্তু দান করা হয়নি। অন্যান্য দেশে সাধারণত দান বাক্সে সাধারণত টাকা পয়সা দান হয়। কোনও কোনও ক্ষেত্রে সোনা রুপোর গহনাও দান করা হয়। দামী পাথরও কেউ কেউ দান করেন। গত এক বছরে সাই বাবার মন্দিরে পূণ্যার্থীরা এই নিয়ে ২২৩টি হিরে দান করেছেন। সব মিলিয়ে এক বছরে হিরের গয়নার মোট মূল্য প্রায় ১.০৬ কোটি টাকা। যেখানে সদ্য পাওয়া হিরের নেকলেসদুটিরই দাম শুধুমাত্র ৯২ লক্ষ টাকা।

এতদামী দুটি হিরের গহনা পেয়ে মন্দির কর্তৃপক্ষ চিন্তায় পড়ে গিয়েছে। বম্বে হাইকোর্টে তারা বিষয়টি জানিয়েছে। এবার নেকলেস দুটিকে কী করা হবে তা আদালত যা সিদ্ধান্ত নেবে।

Top