You are here
Home > অবাক-বিস্ময় > জীবনদাতাকে কাছে পেয়েই গলা বাড়িয়ে আদর রাজহাঁসের!

জীবনদাতাকে কাছে পেয়েই গলা বাড়িয়ে আদর রাজহাঁসের!

জীবনদাতাকে কাছে পেয়েই গলা বাড়িয়ে আদর রাজহাঁসের

ভালোবাসার প্রতিদান ভালোবাসা। আর কিছু না বুঝলেও এই সরল কথাটা হয়তো বুঝে গিয়েছিল সে। তাই অবলা হয়েও কয়েকবছর আগে আপন হয়ে যাওয়া মানুষটিকে চিনতে ভুল হয়নি তার। অনেকদিন পর দেখা হলেও সহজেই চিনতে পেরেছে তাঁকে। কাছে এসেছে, জড়িয়ে ধরেছে। কারণ তার জন্যই তো নতুন জীবন পেয়েছিল একটি রাজহাঁস। আর তাদের ভালোবাসার ছবিই এখন ছড়িয়ে পড়েছে সোশাল সাইটে।

ছবির দুই চরিত্রের মধ্যে একজন হলেন রিচার্ড ওয়াইজ়। যিনি একটি টিভি শোয়ের উপস্থাপক। আর অন্য চরিত্রটি হল একটি রাজহাঁস। যার ঠিকানা ডরসেটের অ্যাবোটসবারি সোয়ানারি। এখানেই রাখা হয় রাজহাঁসগুলিকে।

কিন্তু, কীভাবে কাছাকাছি এল তারা ? কয়েকবছর আগে একটি শো পরিচালনা করতে অ্যাবোটসবারি সোয়ানারিতে আসেন রিচার্ড। সেখানেই অসুস্থ রাজহাঁসটির সঙ্গে পরিচয় হয় তাঁর। ওড়ার সময় ফেন্সে ধাক্কা খেয়ে মারাত্মকভাবে আহত হয়েছিল সে। এরপর নিজে হাতে তাকে ধীরে ধীরে সুস্থ করে তোলেন রিচার্ড। তাঁর জন্যই নতুন জীবন পায় রাজহাঁসটি। পরে চিকিৎসার জন্য রাজহাঁসটিকে অন্য জায়গায় পাঠানো হয়।

এরপর থেকে তাদের আর দেখা হয়নি। কিন্তু, বহু বছর বাদে ফের ওই সোয়ানারিতে আসেন রিচার্ড। অনেক কিছুতে বদল এলেও কিছু জিনিস যে একই আছে, কয়েকমুহূর্তেই তা বুঝতে পারেন তিনি। সেই একই টান, সেই একই ভালোবাসা, সেই একই স্পর্শ। দেখা হতেই তাঁকে জড়িয়ে ধরে রাজহাঁসটি।

গলা বাড়িয়ে রিচার্ডকে জড়িয়ে ধরে সে। আর সেই কয়েক মুহূর্ত রাজহাঁসটি নিজেকে খুব সুরক্ষিত বলে মনে করছিল বলে উপলব্ধি রিচার্ডের। তিনি বলেন, এটা খুবই সুন্দর মুহূর্ত যখন একটি প্রাণী আপনাকে পুরোপুরি বিশ্বাস করে।

আর সেই ভালোবাসা ও বিশ্বাসের কারণেই হয়তো তাকে ভুলতে পারেনি অবলা ওই রাজহাঁসটি।

Top